ওয়াশিং মেশিনের জন্য বর্জ্য পানিই যথেষ্ট

ওয়াশিং মেশিনের জন্য বর্জ্য পানিই যথেষ্ট

মানুষ বিপদের হাতছানি দেখেও সেদিকে এগিয়ে যায় । যেমন ভবিষ্যতে পানির অভাব হবে জেনেও আমরা পানি অপচয় করে চলেছি । নেদারল্যান্ডসের হাইড্রা লুপ নামের এক কম্পানি পানি সংরক্ষণের জন্য এক অভিনব প্রযুক্তি বাজারে এনেছে । এই যন্ত্রের মাধ্যমে জামাকাপড় কাচার জন্যে পুনর্ব্যবহৃত পানি ব্যবহার করা হবে । যন্ত্রটির নাম রাখা হয়েছে হাইড্রালুপ । নতুন ধরনের এই ওয়াশিং মেশিনের সংসারের ব্যবহৃত পানি ঢালা হয় । পানি পরিশোধন করা হয় । হাইড্রালুপ কোম্পানির দাবি এই প্রযুক্তির গ্রাহকদের 45% কম্পানি প্রয়োজন হয় । এই প্রণালী ব্যবহারের সিদ্ধান্ত ব্যাখ্যা করতে গিয়ে ইরান ভিলেন নামের এক গ্রাহক বলেন সন্তানসহ এখানে বসবাস করতে এসে আমাদের মনে হলো যখন আমরা আর থাকবো না তখন ভবিষ্যৎ প্রজন্মের জন্য কিভাবে পৃথিবীটাকে আরো ভালোভাবে রেখে দিতে পারব ?তখন মনে হল আমাদের স্মার্ট হয়ে আগে থেকেই চিন্তা ভাবনা করতে হবে ।

ডয়েচে তেলের খবরে বলা হয়েছে হাইড্রালুপ নামের বিকেন্দ্রীভূত পানি পুনর্ব্যবহার প্রণালীতে ফিল্টার এর বদলে আন্তর্জাতিক মানদণ্ড অনুযায়ী পানি পরিশোধন করা হয়। আর ডিজাইনার আর্টকু ফলকিসার বলেন আমরা শাওয়ার থেকে এবং কখনো ওয়াশিং মেশিন থেকে পানি সংগ্রহ করি । তারপর সাবান চুল বালু ইত্যাদি সরিয়ে সেই পানি পরিশোধন ও জীবাণুমুক্ত করি । তারপর ওয়াশিং মেশিন, টয়লেটের ফ্ল্যাশ ও বাগানে আবার ব্যবহার করা হয় ।
তবে সেই পানি মোটেই পানের যোগ্য নয় । ফলকিসার বিষয়টি ব্যাখ্যা করে বলেন এলইডি আলো তা দেখিয়ে দেয় । আমি যখন ফ্ল্যাশ করি নিচের ট্যাগ থেকে সে পানি আসে । সেই পানি কমে গেলে আলো নীল হয়ে যায় । তখন সাধারন পানি ব্যবহার করতে হয় । তিনি জানান ইউরোপ ছাড়াও দক্ষিণ আফ্রিকা ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রণালী বিক্রি হচ্ছে । এই যন্ত্র পুরনো বাড়ি ঘরে বসানো যায় অথবা নতুন প্রণালীর অংশ হিসেবে কাজে লাগানো যায় । ফল কিসার এই ব্যবসা আরও বাড়াতে চান । তিনি বলেন এর পরের পর্যায়ে আমরা ভারত বাংলাদেশের মত দেশের কোম্পানিগুলোর সঙ্গে সহযোগিতার মাধ্যমে স্থানীয় পর্যায়ে যৌথ উদ্যোগে অনেক কম দামেই প্রণালী উৎপাদন করতে চাই ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *